দিদিমা যৌন লালসার শিকার মদ্যপ যুবকের!

প্রকাশিতঃ ২৪ October, ২০১৮ আপডেটঃ ৭:১৫ PM

বাংলার ঘরে ঘরে যখন লক্ষ্মীর আরাধনা চলছে। তখন মদ্যপ যুবকের বিকৃত যৌন লালসার শিকার হলেন একশো বছরের বৃদ্ধা। এই ঘটনায় স্বভাবতই ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ভারতের নদিয়ার চাকদহে।

মদ খেয়ে রাতের অন্ধকারে প্রতিবেশীর বাড়ীতে ঢুকে বৃদ্ধাকে ধর্ষণ করে নদিয়ার চাকদহের গঙ্গাপ্রসাদপুর গ্রামের এক যুবক। যুবকের নাম অর্ঘ্য বিশ্বাস। তাকে গ্রেফতার করেছে চাকদহ থানার পুলিশ।

সূত্রের খবর, একশো বছর বয়সি ওই বৃদ্ধা তাঁর নাতি ও নাত-বউয়ের সঙ্গে থাকতেন। অভিযোগ, গত ২২ অক্টোবর প্রত্যেক দিনের মতো ওই বৃদ্ধাকে রাতের খাবার খাইয়ে শুইয়ে দিয়ে পাশের ঘরে শুতে চলে যান নাতি ও নাত-বউ।

অভিযোগ, মধ্যরাতে ওই বৃদ্ধার আর্ত চিৎকারে ঘুম ভেঙে যায় নাতি ও নাত-বউয়ের। তাঁরা তড়িঘড়ি বৃদ্ধার ঘরে এসে দেখেন বিছানায় রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন বৃদ্ধা। আর বৃদ্ধার খাটের নীচে লুকিয়ে বসে আছে এলাকারই ওই যুবক।

এর পর বৃদ্ধার নাতি ও নাত-বউ চিৎকার করে প্রতিবেশীদের ডাকতে গেলে পালিয়ে যায় ওই যুবক। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় বৃদ্ধাকে কল্যাণী জওহরলাল নেহরু মেমোরিয়াল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বৃদ্ধার পরিবারের তরফে চাকদহ থানায় লিখিত অভিযোগ করলে পুলিশ মঙ্গলবার রাতে অভিযুক্ত যুবক অর্ঘ্য বিশ্বাসকে গ্রেফতার করে। পুলিশ সূত্রে খবর, পুলিশি জেরায় ধৃত অর্ঘ্য স্বীকার করেছে, মদ খেয়ে নেশার ঝোঁকে বৃদ্ধাকে ধর্ষণ করেছে সে। বুধবার ধৃতকে কল্যাণী মহকুমা আদালতে তোলা হয়।

এসএইচ-১৩/২৪/১০ (অনলাইন ডেস্ক, তথ্য সূত্র : এবেলা)